ছয় বছর ধরে আর্থিক সংকটে গ্রিস শুধু পেটের জ্বালা মেটাতেই দেহ বিক্রিতে বাধ্য হচ্ছেন গ্রিসের মেয়েরা!

ভয়ানক অন্যরকম খবর 6th Dec 17 at 6:36am 2,996
Googleplus Pint
ছয় বছর ধরে আর্থিক সংকটে গ্রিস শুধু পেটের জ্বালা মেটাতেই দেহ বিক্রিতে বাধ্য হচ্ছেন গ্রিসের মেয়েরা!

গত ছয় বছর ধরে আর্থিক সংকটে ভুগছে গ্রিস। বছরের পর বছর অর্থনৈতিক সংকটে ডুবে থাকার ফল যে কতটা ভয়ঙ্কর, তা শুনলে শিউরে উঠতে হয়।

পেটের জ্বালা মেটাতে এখানে দেহ বেচতে হয় মেয়েদের। হ্যাঁ, একটি বড় স্যান্ডউইচের জন্য দেহ বিক্রি করছেন গ্রিসের তরুণীরা।
একটি জরিপে দেখা গিয়েছে, খিদে মেটাতে প্রায় ১৭ হাজার তরুণী দেহব্যবসা শুরু করেছেন। বলা ভালো পূর্ব ইউরোপে দেহব্যবসায় এখন পয়লা নম্বরে গ্রিস।

গ্রিসের জনজীবন নিয়ে তিন বছর ধরে জরিপ চালানো অ্যাথেন্স-এর পেন্টিয়ন ইউনিভার্সিটির অধ্যাপক লাক্সসের কথায়, কোনও কোনও নারী একটু চিজ বা একটা স্যান্ডউইচের জন্যও দেহ বেচতে রাজি হয়ে যাচ্ছেন। কারণ তাঁরা ক্ষুধার্ত। তাঁদের খাবার চাই। কেউ কেউ আবার বিল মেটানো, কর দেওয়া, জরুরি চাহিদা বা ওষুধ কেনার জন্য এই পথে পা বাড়াচ্ছেন।

গ্রিসে যখন অর্থনৈতিক সংকট শুরু হয়, তখন একজন বারাঙ্গনার দর ছিল ৫৩ ডলার (বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় সাড়ে চার হাজার টাকা)।

এখন তা ঠেকেছে ২.১২ ডলারে (১৩৩ টাকা)। ৩০ মিনিটের বিনিময়ে এই টাকা হাতে পান দেহব্যবসায়ীরা।
লাক্সসের সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, ন্যূনতম টাকার বিনিময়ে বিছানায় যাচ্ছেন তাঁরা। এক টুকরো খাবারের জন্য গ্রিসের রাতে পথে বেরুচ্ছেন প্রায় সাড়ে ১৮ হাজার তরুণী। যাঁদের অধিকাংশেরই বয়স ১৭ থেকে ২০-র মধ্যে।

Googleplus Pint
Masuk Ali
Member
Like - Dislike Votes 28 - Rating 5 of 10

পাঠকের মন্তব্য (0)