নিয়মিত কফি খাওয়ার কিছু জাদুকরী উপকারিতা

সাস্থ্যকথা/হেলথ-টিপস 29th Oct 17 at 9:42am 204
Googleplus Pint
নিয়মিত কফি খাওয়ার কিছু জাদুকরী উপকারিতা

ক্লান্তি বা বিষন্নতা থেকে নিজেকে সতেজ করতে কফির তুলনা নেই। এমন অনেকেই আছেন যাদের সকালে ঘুম থেকে উঠে কফিতে চুমুক না দিলে দিনটাই মাটি। আবার দিনের শেষে বিকেলে হালকা নাস্তার সঙ্গে কফি না হলে তো চলেই না।তাহলে চলুন জেনে নিই কফির কিছু গুণাগুণ ও উপকারিতা সম্পর্কে-

কফিতে থাকা সবচেয়ে সক্রিয় উপাদানটির নাম ক্যাফেইন। যা আপনাকে প্রতিকূল পরিস্থিতি অমনোযোগ কাটিয়ে কাজে মনোযোগ দিতে সাহায্য করবে।

টাইপ ২ ডায়াবেটিসের সম্ভাবনাও কমায় কফি। বেশ কিছু গবেষণায় দেখা গেছে যারা নিয়মিত কফি খায় তাদের টাইপ ২ ডায়াবেটিসের ঝুঁকি কম হয়। এই ঝুঁকি কমানোর পরিমাণটা ২৩ থেকে ৬৭ শতাংশ পর্যন্ত হয়ে থাকে।

কফি আলঝেইমার্স ও পারকিনসন্স রোগের বিরুদ্ধেও লড়ে। বয়স বাড়লে কফি আপনার মস্তিস্ককে সুরক্ষা দেয়।

পুষ্টিগুণ আর অ্যান্টিঅক্সিডেন্টে ভরপুর এই পানীয়টি।

কফিতে ভিটামিন বি৫, ভিটামিন বি২, থায়ামাইন বি১, পটাশিয়াম ও ম্যাগনেশিয়াম রয়েছে। শুধু তাই নয় কফিতে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট আপনাকে রাখবে আরো বেশি সতেজ।

স্কিনক্যান্সারের প্রতিরোধক হিসেবেও বেশ কার্যকর কফি।
ন্যাশনাল ক্যান্সার ইন্সটিটিউটের একটি গবেষণাপত্রে সম্প্রতি জানিয়েছে প্রতিদিন কফি পান করলে সেটা শরীরে ম্যালিগন্যান্ট মেলানোমা তৈরিতে বাধা দেয়। ফলে ত্বক রক্ষা পায় ক্যান্সারের হাত থেকে।

সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে কফি শুষ্ক চোখের সমস্যা সমাধানেও বেশ কার্যকর। ক্যাফেইন চোখের অশ্রুগ্রন্থিকে উদ্দীপিত করে সেই সঙ্গে সেটা সালিভা এবং পাচকরস তৈরি বাড়ায়।

প্রতিদিন এক কাপ কপি যদি আপনাকে এত এত উপকার দেয় তাহলে অন্য কোনো পানীয় ছেড়ে কফির দিকে ঝুঁকতে বাধা কিসের। সুতরাং আজ থেকেই শুরু হোক কফিপ্রীতি।

Googleplus Pint
Mizu Ahmed
Manager
Like - Dislike Votes 11 - Rating 4 of 10

পাঠকের মন্তব্য (0)