সিনেমার শিক্ষা

মজার সবকিছু 18th Apr 16 at 8:23pm 678
Googleplus Pint
সিনেমার শিক্ষা

শত্রুর তাড়া খেয়ে রাস্তায় বেরোলে নায়কের লুকানোর জায়গার অভাব হয় না। রাস্তায় অবধারিতভাবে কোনো না কোনো মিছিল থাকবেই। সেই মিছিলের ভিড়ে নিজেকে আড়াল করে ফেললেই হলো।

* গৃহকর্তা বাজার থেকে বাজারের ব্যাগ নিয়ে যখন ফেরেন, তখন অবশ্যই তাঁর ব্যাগ থেকে উঁকি দেবে এক আঁটি শাক।

* পাইলট গুলি খেয়ে মারা গেলেও কোনো সমস্যা নেই। যেকোনো যাত্রী কয়েকটা বাটন টেপাটিপি করলেই প্লেন চলা শুরু করে এবং তাকে সাহায্য করার জন্য কন্ট্রোল টাওয়ারে কেউ না কেউ থাকেই।

* ঠোঁটে একবার লিপস্টিক দিলে সেটা কখনোই মুছে যায় না, এমনকি স্কুবা ডাইভিং করলেও।

* যেকোনো বিল্ডিংয়ের ভেন্টিলেশন সিস্টেম লুকানোর জন্য সবচেয়ে উত্তম জায়গা। কেউ কখনো ভুলেও সেখানে শত্রুকে খুঁজে দেখবে না।

* প্যারিসের যেকোনো বাড়ির যেকোনো দিকের জানালায় দাঁড়ালে আইফেল টাওয়ার দেখা যায়।

* খাবার টেবিলে কেউ কখনোই খাবার শেষ করে ওঠে না। দুই লোকমা খেলেই সবার পেট ভরে যায়।

* শত্রুর হাজার মার খেয়েও নায়কের ব্যথা লাগে না। কেবল নায়িকা যখন তার ক্ষত পরিষ্কার করে দেয়, তখনই সে ব্যথা পায়।

* ট্যাক্সি থেকে নেমে মিটার দেখার দরকার হয় না। মানিব্যাগ খুলে কয়েকটা নোট বের করে ড্রাইভারের হাতে দিয়ে দিলেই হলো।

* যেকোনো খুনের তদন্ত করার জন্য পুলিশকে একবার হলেও নাইট ক্লাবে যাওয়া লাগে।

* বিত্তবান মানুষ মাত্রই সকালবেলা টোস্ট আর বাটার দিয়ে নাশতা করে।

* প্রাইভেট কার কিংবা ট্রাক-যেটাই অ্যাক্সিডেন্ট করুক না কেন অবধারিতভাবে গাড়িতে আগুন লাগবে।

* একটা ম্যাচের কাঠি জ্বালালেই হলো, ফুটবল স্টেডিয়ামের সমান রুমও মুহূর্তেই আলোকিত হয়ে উঠবে।

* গৃহকর্তা যখন গোসল করতে বাথরুমে ঢুকবে, ঠিক তখনই ঘরে লুকিয়ে থাকা খুনি বের হয়ে আসবে।

* হাতের রিভলবার দিয়ে দৃষ্টিসীমার বাইরের বস্তুতেও ঠিক ঠিক গুলি করা যায়।

* যে কেউ চাইলেই ব্যস্ত রাস্তায় দাঁড়িয়ে নাচ শুরু করে দিতে পারে। কেউ তাকে ভুলেও পাগল ভাববে না।

* যখন দায়িত্ব থেকে সাসপেন্ড করে দেওয়া হয়, কেবল তখনই গোয়েন্দা কর্মকর্তা রহস্যের সমাধান করতে পারেন।

* অস্ত্রগুলো ডিসপোজেবল রেজরের মতো ব্যবহার করতে হয়। বুলেট শেষ হয়ে গেলে ছুড়ে ফেলে দিতে হয়।

* পেতে রাখা বোমার সঙ্গে সব সময় একটা ডিজিটাল ঘড়ি লাগানো থাকে, যাতে যে কেউ বুঝতে পারে এটা কখন ফাটতে যাচ্ছে।

* কুকুর সব সময় জানে কে ভালো আর কে খারাপ। খারাপ লোক দেখলেই এরা ঘেউ ঘেউ করে ওঠে।

* বিশজন শত্রুর গুলিতে নায়কের কিছু হয় না; কিন্তু নায়কের একটা গুলিতে বিশজন শত্রুই কুপোকাত।

* সোজা রাস্তায় গাড়ি চালাতে হলেও অনর্গল স্টিয়ারিং ঘুরাতে হয়-একবার ডানে আর একবার বামে।

প্রেমিক-প্রেমিকা ঘর ছেড়ে পালিয়ে গেলে তাদের থাকা-খাওয়ার কোনো অসুবিধা হয় না। পথের ধারে কিংবা জঙ্গলে একটা তৈরি বাড়ি খালি পড়ে থাকে তাদের থাকার জন্য।

Googleplus Pint
Jafar IqBal
Administrator
Like - Dislike Votes 23 - Rating 5 of 10

পাঠকের মন্তব্য (0)