১২ ঘণ্টা কাজ করেও সুস্থ থাকার উপায়!

লাইফ স্টাইল 24th Feb 17 at 10:23pm 453
Googleplus Pint
১২ ঘণ্টা কাজ করেও সুস্থ থাকার উপায়!

কর্মব্যস্ত জীবনে অনেককেই ১২ ঘণ্টাও কাজ করতে হয়। ব্যস্ততা এত বেশি যে, নিজের দিকে নজর দেওয়ারও সময় নেই। এতে করে শারীরিক দুর্বলতা ছাড়াও বিভিন্ন সমস্যার দেখা দেয়।

সবচেয়ে বড় কথা সুস্থ রাখার মালিক সৃষ্টিকর্তা। কিন্তু তাই বলে নিজের প্রতি অবহেলা করে না চলাই ভালো।

তাহলে জেনে নিন যেসব বিষয় মেনে চললে ১২ ঘণ্টা কাজ করলেও ক্লান্তি স্পর্শ করবে না আপনাকে.....

১) সারাদিনের রুটিনে কিছুটা সময় রাখুন হাঁটার জন্য। শরীর চর্চা করার জন্য হাতে কোনো সময় নেই বলে কোনো অজুহাত দেবেন না। যখন ফোনে কথা বলছেন, তখন হাঁটুন। গাড়ি কিছুটা দূরে পার্ক করুন।

আর সেখান থেকে অফিস পর্যন্ত হেঁটে আসুন। লিফটের পরিবর্তে সিঁড়ি ব্যবহার করুন। এক স্টপেজ আগে বাস থেকে নেমে যান। আর সেখান থেকে অফিস কিংবা বাড়ি পর্যন্ত হেঁটে আসুন।

২) শরীরের কিছুটা সূর্যের আলো পড়তে দিন। সূর্যের আলোতে ভিটামিন ডি থাকে। যার থেকে আমরা প্রচুর পরিমাণে এনার্জি পাই। তাই সময় পেলেই শরীরের খোলা অংশে সূর্যের আলো পড়তে দিন। সারাদিন সতেজ থাকবেন।

৩) প্রতিদিন একটা করে আপেল খান। যদি রোজ আপেল না খেতে পারেন, তাহলে প্রত্যেকদিন একটি করে যেকোনো মৌসুমী ফল খান।

৪) ধূমপান স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর জানার পরেও আমরা ধূমপান করেন। এবার সেই নেশাটিকে দূর করুন। যদি মনে করেন, আজ নয় কাল ছাড়বেন, তাহলে আর কোনোদিনই ছাড়তে পারবেন না। আজই ধূমপান করা ত্যাগ করুন।

৫) প্রচুর পরিমাণে পানি খান। পানি আমাদের শরীরকে ডিহাইড্রেট হওয়া থেকে বাঁচায়। ত্বক এবং চুলের স্বাস্থ্যের জন্য পানি খুবই উপকারী। তাই ত্বক এবং চুলের জন্য দামি দামি প্রসাধনী দ্রব্য ব্যবহার না করে পানি খান এবং বেশি পানিতে গোসল করুন।

৬) শরীরকে সুস্থ রাখার জন্য ঘুম খুবই গুরুত্বপূর্ণ। প্রতিদিন যতই ব্যস্ত থাকুন চেষ্টা করুন কমপক্ষে ৭ ঘণ্টা ঘুমানোর।

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 35 - Rating 6 of 10

পাঠকের মন্তব্য (0)