বস না বললেও যে ৬ লক্ষণে বুঝবেন আপনি ভালো করছেন

লাইফ স্টাইল 6th Jan 17 at 2:38pm 327
Googleplus Pint
বস না বললেও যে ৬ লক্ষণে বুঝবেন আপনি ভালো করছেন

নতুন চাকরিতে যোগদানের পর আবেগের ওপর দিয়ে যেন এই রোলারকোস্টার চলে। প্রথমদিকে আপনি কেমন করছেন সে সম্পর্কে আপনি কোনো ধারণাই পাবেন না।

কিন্তু শিগগিরই আপনি পায়ের নিচে মাটি খুঁজে পাবেন। আপনি নিজের অবস্থানে আরো আত্মবিশ্বাস অর্জন করবেন। ফলে আপনি বস এবং সহকর্মীদের প্রশংসাও অর্জন করবেন।

এছাড়াও আরো ছয়টি লক্ষণে বুঝবেন, আপনি একজন অসাধানণ কর্মী। এমনকি আপনার বস যদিও আপনাকে তা বলছেন না।

১. আপনি আরো বেশি ফিডব্যাক পাচ্ছেন
আপনি হয়তো ভাবতে পারেন ভালো করলে তো শুধু প্রশংসা লাভ করার কথা ছিল। কিন্তু বিষয়টি এভাবে ভাবুন: আপনি ভালো করছেন দেখে আপনার বস এখন আপনি যাতে আরো ভালো করতে পারেন সেজন্য আপনার গঠনমূলক সমালোচনা করছেন। আপনি নিজের ব্যাপারে প্রত্যাশার উচ্চ সীমা নির্ধারণ করেছেন। সুতরাং আপনার ম্যানেজারের কাজ হলো আপনাকে এখন বারবার চ্যালেঞ্জ করা।

সুতরাং, স্বয়ংক্রিয়ভাবেই ভাববেন না যে ফিডব্যাক বেড়ে যাওয়াটা ভালো লক্ষণ নয়। আপনি প্রত্যাশাকেও ছাড়িয়ে যাচ্ছেন তারও লক্ষণ হতে পারে এটি।

২. আপনি প্রশ্নের উত্তরের উৎস হয়ে উঠেছেন
যখন আপনার সহকর্মীরা কোনো প্রশ্নের উত্তর খোঁজেন বা সমস্যায় পড়েন তারা সবার আগে আপনার কাছেই সহযোগিতা এবং দিকনির্দেশনার জন্য আসেন।

কেন? কারণ, আপনার ওপর তাদের আস্থা আছে। আপনি নিজেকে একজন বিশেষজ্ঞ হিসেবে প্রতিষ্ঠা করেছেন। আর আপনার সহকর্মীরাও বিপদের সময় আপনার কাছে সহযোগিতা চাইতে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করেন।

৩. আপনার কাছে মতামত চাওয়া হয়
আলোচনার সময় আপনার মতামত চাওয়াটাও আরেকটি লক্ষণ যে আপনি ইতিবাচক ছাপ ফেলছেন।

বড় কোনো সিদ্ধান্তগ্রহণ এবং গুরুত্বপূর্ণ কথপোকথনের সময় যদি আপনাকেও রাখা হয় তাহলে বুঝবেন আপনার বস এবং সহকর্মীরা আপনার চিন্তা এবং ধারণাগুলোকে গুরুত্ব দিচ্ছেন।

৪. আপনার ওপর আপনার বস নির্ভর করেন
“আপনি কি আমাকে একটু সহায়তা করতে পারবেন? প্রতি সপ্তাহেই আপনি আপনার বসের কাছ থেকে এমন প্রশ্ন শোনেন। বিশেষ প্রয়োজনে বস সবার আগে আপনাকেই ডেকে পাঠান। আর অফিসের বাইরের বার্তাগুলোতেও তিনি তার নিজের বিকল্প যোগাযোগ হিসেবে সবসময় আপনার নাম উল্লেখ করেন। এসব থেকে বুঝবেন যে আপনার বস আপনাকে দ্বিতীয়বার চিন্তা না করেই বিশ্বাস করেন।

৫. আপনি নিজেই আপনার কাজের ইনচার্জ
আপানাকে নতুন কোনো দায়িত্ব দেওয়ার পর যদি আপনার বস তা পুরোপুরি আপনার হাতেই ছেড়ে দেন তাহলে বুঝতে হবে আপনি তার প্রশ্নহীন আস্থা অর্জন করার জন্য নিজেকে যথেষ্ট প্রমাণ করেছেন।

৬. আপনাকে কম্পানির প্রতিনিধিত্ব করার জন্য বলা হয়
আপনাকে আপনার নিয়োগকর্তা কম্পানির পক্ষ হয়ে কথা বলার জন্য কোথাও পাঠানো হয়েছে। বহিরাগত কোনো বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে বৈঠকে আপনাকে নেতৃত্ব দিতে বলা হয়েছে। কম্পানির কোনো বিষয়ে আপনার উদ্ধৃতি দেওয়া হয়।

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 22 - Rating 5 of 10

পাঠকের মন্তব্য (0)