হুজুর, অলি, আউলিয়া শব্দের অর্থ কী?

ইসলামিক জ্ঞান 13th Dec 16 at 9:55pm 2,618
Googleplus Pint
হুজুর, অলি, আউলিয়া শব্দের অর্থ কী?

অলি- অভিভাবক, অলি- বন্ধু, অলি- আল্লাহর অলি। অলি আরবী শব্দ যার অর্থ অভিভাবক বা মুরুব্বী, বন্ধু। আরবী ভাষায় “আউলিয়া” শব্দটি “অলির বহুবচন। অলি অর্থ বন্ধু,মিত্র বা অনুসারি। কখনো শব্দটির অর্থ হয় শাসক,অভিভাবক বা কর্তা। (তথ্যসূত্রঃ আরবী-বাংলা অভিধান,প্রকাশনায় ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ)।

প্রসিদ্ধ আরবী-ইংরেজী অভিধান “আল-মাওয়ারিদ” অনুসারে অলি শব্দের অর্থঃ guardian, patron, friend, companion ইত্যাদী। পবিত্র কোরআনে “অলি” এবং “আউলিয়া” এ উভয় শব্দটির ব্যবহার হয়েছে অসংখ্য বার।

আল্লাহ তায়ালা কুরআনে বলেছেন – ” আলা ইন্না আঅলিয়া আল্লাহি লা খাওফুন আ লাইহিম ওয়া লাহুম ইয়াহ্ঝানুন।

আল্লাযীনা আ মানূ ওয়া কানূ ইয়াত্তাকানূন।” অর্থ- “জেনে রাখ নিশ্চয়ই আল্লাহর অলিদের কোন ভয় নাই এবং তাহারা দুঃখিতও হবে না। যারা ঈমান এনেছে এবং তাকওয়া অবলম্বন করেছে। ( সূরা ইউনুস ১০: ৬২- ৬৩ )

এখানে আল্লাহ তায়ালা অলিদের দুটি গুণ বর্ণনা করেছেন। (১) যারা ঈমান আনয়ন করেছে। শিরক মুক্ত মুসলমান যারা। (২) তাকওয়া অর্থাৎ, সর্বক্ষেত্রে একমাত্র আল্লাহকে ভয় করে তাঁর নিষিদ্ধ সকল প্রকার হারাম কাজ বর্জন করে চলা।

নিশ্চয়ই তোমাদের অলি হলেন আল্লাহ এবং তাঁর রসুল আর ঈমানদার লোকেরা- যারা সালাত কায়েম করে, যাকাত দিয়ে দেয়, এবং আল্লাহর প্রতি অনুগত বাধ্যগত থাকে। যারা অলি মানে আল্লাহকে এবং আল্লাহর রসুলকে আর ঈমানদার লোকদেরকে, তারাই আল্লাহর দল এবং আল্লাহর দলই থাকবে বিজয়ী ( সূরা আল মায়িদা,আয়াত-৫৫-৫৬)

এ দুটি আয়াত থেকে জানা গেল, সকল মুমিনই আল্লাহর অলি, যারা সালাত কায়েম করে,যাকাত প্রদান করে, আল্লাহকে ভয় করে এবং আল্লাহর অনুগত থাকে তারাই অলি।

Googleplus Pint
Like - Dislike Votes 54 - Rating 4 of 10

পাঠকের মন্তব্য (0)